Headlines

ফেসবুকে বন্ধু বানানোর অনুরোধ

Posted by sazzad hossain | | Posted in

ফেসবুকে বেশি বেশি বন্ধু বানাতে পারছেন না? মানে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠানো যাচ্ছে না? মাঝেমধ্যেই হয়তো আপনার ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট ফেসবুক আটকে দিচ্ছে (ব্লক করা) দিচ্ছে দুই বা পাঁচ দিনের জন্য। অপরিচিত কাউকে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠানোটা ফেসবুকের অপব্যবহারের (মিসইউজ) মধ্যে পড়ে। এই সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের অপব্যবহার ঠেকাতে ফেসবুক মাঝে মাঝে এই কাজটি করে থাকে। এমনকি অনেক সময় পরিচিত কাউকেও ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠাতে দিচ্ছে না ফেসবুক।
ফেসবুক কাজ করে তার প্রোগ্রাম মেনে। প্রোগ্রাম আবেগ বোঝে না, যুক্তি বোঝে। আপনি কারও কাছে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠাতে চান। এখন ফেসবুক কীভাবে বুঝবে, আপনি তার পরিচিত। এর জন্য ফেসবুক যে জিনিসগুলো যাচাই করে, তা হলো আপনার সঙ্গে তার ‘মিউচুয়াল ফ্রেন্ড’ কতজন, আপনি আর তিনি একই স্কুল, কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়েছেন কি না, আপনারা দুজন সহকর্মী কি না ইত্যাদি। এ ছাড়া আপনার ও তাঁর নেটওয়ার্ক একই কি না, একই এলাকায় বাস করেন কি না বা একই এলাকায় আপনাদের বাড়ি কি না? এই প্রশ্নগুলো যাচাই করে ফেসবুক বুঝতে পারে, আপনি তাঁর পরিচিত কি না। তা ছাড়া আপনি যাদের কাছে ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠিয়েছেন, তারা সবাই কি আপনাকে গ্রহণ করেছে, নাকি বেশির ভাগই আপনাকে গ্রহণ করেনি। এগুলো যাচাই করে ফেসবুক বুঝতে পারে, আপনি ফেসবুকের অপব্যবহার করছেন কি না। অপব্যবহার করলে প্রথমে দুই দিন, তারপর পাঁচ দিন আপনার ফ্রেন্ড রিকোয়েস্ট পাঠানো আটকে রেখে ফেসবুক আপনাকে সতর্ক করে। আপনি তার পরও সতর্ক না হলে ১৫ দিন, এক মাস, দুই মাস ব্লক থাকবে। তার পরও আপনি সতর্ক না হলে পরে ফেসবুক অ্যাকাউন্টই নিষ্ক্রিয় (ডিজেবল) হয়ে যায়। অনেক সময় ফেসবুক আপনার অ্যাকাউন্টটি ব্লক করে রাখে। তখন জাতীয় পরিচয়পত্রের ফটোকপি ফেসবুক কর্তৃপক্ষের কাছে জমা দিলে তখন ফেসবুক কর্তৃপক্ষ আবার অ্যাকাউন্ট ছেড়ে দেয়। তাই একেবারে অপরিচিত কাইকে ফেসবুকে বন্ধুত্বের অনুরোধ পাঠানো ঠিক নয়।

চালু হলো বিক্রয় ডটকম

Posted by sazzad hossain | | Posted in

আনুষ্ঠানিকভাবে চালু হলো নতুন ও পুরোনো পণ্য কেনাবেচার ওয়েবসাইট বিক্রয় ডটকম (www.bikroy.com)। গাড়ি, বাড়ি, ঘরের ব্যবহার্য নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদি, নতুন-পুরোনো মুঠোফোনের কেনা ও বিক্রির জন্য এই সাইটে বিনা মূল্যে বিজ্ঞাপন দেওয়া যাবে।
রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে এক সংবাদ সম্মেলনে বিক্রয় ডটকম চালুর ঘোষণা দেওয়া হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন বিক্রয় ডটকমের সিইও নিলস হামার, প্রতিষ্ঠানটির কান্ট্রি ম্যানেজার ইশিতা শারমিন এবং বাংলাদেশ গণিত অলিম্পিয়াডের সাধারণ সম্পাদক মুনির হাসান। এ সময় বাংলাদেশে ই-কমার্সের সম্ভাবনা কথা উল্লেখ করে মুনির হাসান বলেন, ‘বাংলাদেশ ২০০৯ সালে ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা ছিল মাত্র ৯৬ হাজার আর এখন নিয়মিত ফেসবুক ব্যবহারকারীর সংখ্যা ১৭ লাখ। অর্থাৎ ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা বেড়েছে, তাই স্বাভাবিকভাবেই ইন্টারনেটে ক্রয়-বিক্রয়ের পরিমাণও বাড়বে দিন দিন।’
নিজেদের প্রতিষ্ঠান সম্পর্কে নিলস হামার বলেন, ‘একজন পণ্যবিক্রেতা যেমন বিনা মূল্যে বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন, তেমনি একজন ক্রেতাও তেমনি পণ্যের জন্য ফরমাশ দিতে পারবেন। এখানে যেমন একজন ব্যক্তি তাঁর বিজ্ঞাপন দিতে পারবেন, তেমনি প্রতিষ্ঠানও পারবে বিজ্ঞাপন প্রদান করতে।’
এ সময় প্রতিষ্ঠানটির কান্ট্রি ম্যানেজার ইশিতা শারমিন বলেন, ‘পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কায় প্রতিষ্ঠানটি আগে থেকে কাজ করছে। এরই ধারাবাহিকতায় বাংলাদেশে কাজ শুরু করল বিক্রয় ডটকম।’

যুক্তরাজ্যের আদালতে স্যামসাংয়ের জয়

Posted by sazzad hossain | | Posted in


অ্যাপল কম্পিউটার ইনকরপোরেটেড যুক্তরাজ্যে স্যামসাংয়ের বিরুদ্ধে দায়ের করা একটি মামলায় হেরে গেছে। অ্যাপলের অভিযোগ ছিল, তাদের পণ্যের নকশা নকল করেছে দক্ষিণ কোরিয়ার স্যামসাং। লন্ডন হাইকোর্ট রায় দিয়ে বলেছেন, স্যামসাং অ্যাপলের কোনো নকশাস্বত্ব লঙ্ঘন করেনি। হাইকোর্টের বিচারক ব্রিস বলেন, ‘স্যামসাংয়ের গ্যালাক্সি ট্যাব কম্পিউটারের নকশা মোটেই অ্যাপলের আইপ্যাডের মতো নয়। স্যামসাংয়ের কোনো পণ্যের নকশা অ্যাপলের পণ্যের মতো সাদামাটা নয়।
বিচারক অ্যাপলকে এই নির্দেশ দেন, স্যামসাং যে তাদের পণ্যের নকশা নকল করেনি, এ ব্যাপারে একটি বিজ্ঞাপন অ্যাপলকে প্রচার করতে হবে। অ্যাপলের ওয়েবসাইটে এই বিজ্ঞাপন কমপক্ষে ছয় মাস ধরে প্রচার করতে হবে। এ ছাড়া বিভিন্ন সংবাদপত্র ও টেলিভিশনেও এই বিজ্ঞাপন প্রচার করতে হবে।
এ নিয়ে অ্যাপল মোট চারটি দেশে স্যামসাংয়ের বিরুদ্ধে করা মামলায় হারল। এর আগে যুক্তরাষ্ট্র, নেদারল্যান্ড ও অস্ট্রেলিয়ায় করা মামলায় অ্যাপল হেরে যায়। তবে যুক্তরাষ্ট্রে স্যামসাংয়ের বিরুদ্ধে করা অপর একটি মামলায় অ্যাপলের জয় হয়েছিল। মেধাস্বত্ব আইন লঙ্ঘন করায় স্যামসাং কর্তৃপক্ষকে ১০৫ কোটি ডলার ক্ষতিপূরণ দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিলেন মার্কিন আদালত। লন্ডন হাইকোর্টের এ রায়ের ব্যাপারে অ্যাপল এখনো কোনো বিবৃতি দেয়নি।
—বিবিসি অবলম্বনে রোকেয়া রহমান

পাকিস্তানের সাবেক সেনাপ্রধানের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ

Posted by sazzad hossain | | Posted in


পাকিস্তানের সাবেক সেনাপ্রধান আসলাম বেগ ও গোয়েন্দা সংস্থা ইন্টার সার্ভিসেস ইন্টেলিজেন্সের (আইএসআই) সাবেক প্রধান আসাদ দুররানির বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে সরকারকে নির্দেশ দিয়েছেন সে দেশের সুপ্রিম কোর্ট। ১৯৯০ সালের নির্বাচনে পাকিস্তান পিপলস পার্টির (পিপিপি) জয় ঠেকাতে নতুন দল গঠনের জন্য রাজনীতিকদের অর্থ জোগানোর দায়ে আদালত এ নির্দেশ দেন।
১৬ বছর আগে বিমানবাহিনীর সাবেক প্রধান আসগর খানের দায়ের করা মামলার পরিপ্রেক্ষিতে গতকাল শুক্রবার সুপ্রিম কোর্ট এ আদেশ দেন।
আদালত বলেন, ১৯৯০ সালের নির্বাচনে কারচুপি হয়েছিল। পিপিপিকে ঠেকাতে আসলাম বেগ ও আসাদ দুররানি সরাসরি জড়িত ছিলেন বলে আদালত নিশ্চিত হয়েছেন। এদিকে এ রায় ঘোষণার পর পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী রাজা পারভেজ আশরাফ গতকাল এক সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, এ চক্রান্তের নেপথ্যে থাকা সব অপরাধীকে বিচারের কাঠগড়ায় দাঁড় করানো হবে। রাজা পারভেজ এ রায়কে ‘ঐতিহাসিক’ এবং দিনটিকে ‘গণতন্ত্রের বিজয়ের দিন’ বলে অভিহিত করেন।
আসগর খানের মামলার আরজিতে বলা হয়, ১৯৯০ সালে পাকিস্তানের পার্লামেন্ট নির্বাচনে বর্তমান ক্ষমতাসীন দল পাকিস্তান পিপলস পার্টির (পিপিপি) ক্ষমতায় যাওয়া ঠেকাতে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাকে অর্থ দেয় আইএসআই। এ গোয়েন্দা সংস্থা ইসলামি জামহুরি ইত্তেহাদ (আইজেআই) নামের একটি দল গঠনে ১৪ কোটি রুপি দেয় রাজনীতিবিদদের। আইএসআইয়ের এই অর্থ দেওয়ার বিষয়টি তদন্তের জন্য ১৯৯৬ সালে আদালতে আবেদন করেন আসগর খান। গোয়েন্দা সংস্থাটির তৎকালীন প্রধান দুররানি পিপিপির জয় ঠেকাতে রাজনীতিবিদদের অর্থ দেওয়ার বিষয়টি স্বীকার করার পর এ বিষয়ে তদন্তের আবেদন করেন আসগর খান।
পাকিস্তানের প্রধান বিচারপতি ইফতিখার মোহাম্মদ চৌধুরী, বিচারপতি জাওয়াদ এস খাজা ও বিচারপতি খিলজি আরিফ হুসাইনের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ সংক্ষিপ্ত আদেশ দেন। আদেশে বলা হয়, গোয়েন্দা সংস্থা বা প্রেসিডেন্টের কার্যালয়ের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট কোনো রাজনৈতিক শাখা থাকলে তা অবশ্যই নির্মূল করা উচিত। রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড সেনাবাহিনী কিংবা গোয়েন্দা সংস্থার দায়িত্বের মধ্যে পড়ে না। আদালত বলেন, আসলাম বেগ ও আসাদ দুররানি এবং অন্য যাঁরা পার্লামেন্ট নির্বাচনকে প্রভাবিত করার চেষ্টা করেছেন, তাঁরা ব্যক্তিগতভাবে এই অবৈধ কাজটি করেছেন। এর সঙ্গে পুরো সামরিক বাহিনী জড়িত নয়।
নির্দেশ দেওয়ার আগে শুনানিতে প্রধান বিচারপতি ইফতিখার মোহাম্মদ চৌধুরী বলেন, আদালত পাকিস্তানে গণতান্ত্রিক প্রক্রিয়া অব্যাহত রাখতে সব ধরনের সহায়তা দিয়ে যাবেন। এ প্রক্রিয়া ব্যাহত করার অপচেষ্টা মেনে নেওয়া হবে না।
সুপ্রিম কোর্টের রায়ে সন্তোষ প্রকাশ করেছেন মামলার বাদী আসগর খান। তিনি বলেন, অবসরপ্রাপ্ত সামরিক কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে সর্বোচ্চ আদালতের এ ধরনের রায় পাকিস্তানের ইতিহাসে এই প্রথম। অপরাধী সামরিক বা বেসামরিক ব্যক্তি যে-ই হোন না কেন, তাঁর শাস্তি নিশ্চিত করতে হবে। রয়টার্স ও ডন।

‘সাইফ-কারিনার বিয়ে অবৈধ ’

Posted by sazzad hossain | | Posted in ,


26887_safthumbnail1.jpgবলিউডের হাইপ্রোফাইল বিয়ে নিয়ে যখন গোটা বলিউডে হৈ হুল্লোড় চলছে ঠিক সেই সময়ই সাইফ আালি খান পতৌাদি ও কারিনা কাপুরের বিয়ে ইসলামি মতে অবৈধ বলে জানিয়ে দেয়া হয়েছে। ভারতের প্রধান ইসলামি ধমীয় প্রতিষ্ঠান দেওবন্ধ থেকে জানিয়ে দেয়া হয়েছে যে, পতৌদির নবাবের এই শাহী বিয়ে অবৈধ এবং ইসলামবিরোধী। গত ১৬ই অক্টোবর সাইফ ও কারিনার বিয়ে নিবন্ধিত হয়েছে। এর পর নিকাও সম্পূর্ণ হয়েছে বলে জানা গেছে। তবে কাপুর পরিবারের ঘনিষ্ট ও ফ্যাশন ডিজাইনার মনীশ মালহোত্রা জানিয়েছেন, ঠিক নিকা বলতে যা বোঝায় তা হয়নি। বর ও পাত্রী দুজনে শপথ নিয়েছেন মাত্র। তবে দেওবন্ধের মতে, ইসলামি আইন অনুয়ায়ী এই বিয়ে সম্পন্ন হয়নি। বিয়ের আগে কারিনার ইসলাম ধর্মে ধর্মাান্তরিত না হওয়াকেই বড় অন্যায় বলে মনে করছেন দেওবন্দের প্রবীণ মৌলভী হবিবুর রহমান। তিনি জানিয়েছেন, ইসলাম এই বিয়েকে কোনভাবেই অনুমোদন করে না। অবশ্য শর্মিলা ঠাকুর যখন পতৌদির নবাব মনসুর আলি খানকে বিয়ে করেছিলেন তখন শর্মিলা নিয়ম মেনে ধর্মান্তরিত হয়েছিলেন। তার নাম হয়েছিল আয়েশা। তবে পতৌদি খানদানের এই বিয়েতে এসব কিছুই হয়নি। শোনা গেছে, কারিনা ইসলাম ধর্মমতে ধর্মান্তরিত হতে আপত্তি জানিয়েছেন। বরং তিনি খ্রীস্টান মতেই আংটি বদল করেছেন। কারিনার মা ববিতা খ্রীস্টান ধর্মের অনুসারি। বাবা রনধীর কাপুর হিন্দু হলেও কারিনা ছোটবেলা থেকেই খ্রীস্টান ধর্মমত মেনে চলেছেন। কারিনা নিয়মিত চার্চেও যান। অন্যদিকে নবাব পরিবার ইসলামি নিয়ম কানুন মেনে চলেন।

সানি লিওনের আরও তিন

Posted by sazzad hossain | | Posted in

sunny-leon.jpgহ্যালো-টুডে ডটকম : ‘জিসম ২’ সিনেমার মধ্য দিয়ে বলিউডে বেশ ভালই আলোড়ন সৃষ্টি করেছিলেন ইন্দো-কেনেডিয়ান পর্নোতারকা সানি লিওন। আর এবার বেশ পাকাপোক্তভাবেই বলিউডে জেঁকে বসার জন্য আলাম্ব্রা এন্টারটেইনমেন্টের সঙ্গে আরও তিনটি সিনেমার চুক্তি সই করলেন তিনি। ২০১৩-এর মাঝামাঝি সময়েই সানি এই সিনেমাগুলোর কাজ শুরু করবেন। এরই মধ্যে সিনেমার বিষয়বস্তু ও অন্যান্য বিষয় নিয়ে আলা¤্র^া এন্টারটেইনমেন্টের সঙ্গে সবকিছু ঠিকঠাক করে নিয়েছেন তিনি।
আলাম্ব্রা এন্টারটেইনমেন্টের এক মুখপাত্র এ বিষয়ে বলেন, বলিউডে ‘জিসম ২’ এবং ‘রাগীনি এমএমএস ২’-এর পর সানি তার তৃতীয়, চতৃর্থ এবং পঞ্চম সিনেমা আমাদের সঙ্গেই করবেন। সময় হলেই এ বিষয়ে আমরা সব কথা জানাতে পারবো।

মুদ্রণ নয় অনলাইনে ‘নিউজউইক’

Posted by sazzad hossain | | Posted in

2012-10-19-06-18-43-094723300-_63563178_newsweek_afp.jpg ৮০ বছরের পুরনো মার্কিন ম্যাগাজিন ‘নিউজউইক’ ডিসেম্বর থেকে আর কাগজে ছাপা হবে না। এর মুদ্রণ সংস্করণ বন্ধ হয়ে যাবে।বিবিসি সূত্রে জানা গেছে, আগামী ৩১ ডিসেম্বর নিউজউইক ম্যাগাজিনটির সর্বশেষ ছাপা সংস্করণ বের হবে। এরপর শুধু অনলাইন সংস্করণ থাকবে।যুক্তরাষ্ট্রের সাপ্তাহিক ম্যাগাজিনের তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে থাকা নিউজউইক, বিজ্ঞাপনের হার ও বিক্রি কমে যাওয়ায় অনলাইন সংস্করণের পথ বেছে নিচ্ছে বলে জানা গেছে।আর তালিকার প্রথম অবস্থানে রয়েছে টাইম ম্যাগাজিন।

online24bdnews

পুরোনো সংবাদ

online24bdnews

Popular Posts

sazzad. Powered by Blogger.